Skip to content

দোয়া মাসুরা, দোয়া কুনুত, সূরা হাসরের তিন আয়াত, ও পাঁচ কালেমা

  • by

বিসমিল্লাহির রহমানির রাহিম

আসসালামু আলাইকুম আজকে আমরা নতুন একটি পোস্ট নিয়ে কথা বলব আর এই সম্পুর্ন পোস্ট জুড়ে আজকে আমরা আলোচনা করব দোয়া মাসুরা, দোয়া কুনুত, সূরা হাশরের তিন আয়াত, ও পাঁচ কালেমা, যা আমাদের একজন মুসলমান হয়ে সকলের কাছে থাকা উচিত অথবা জানা উচিত । কারন একটি মানুষ যদি দোয়া মাসুরা দোয়া কুনুত ,সুরা হাশরের তিন আয়াত, সম্পর্কে না জানে তাহলে সে একজন পরিপূর্ণ মুসলিম ঈমানদার হতে পারেনা ।

শুধু তাই নয় মুসলমান হিসেবে আমাদের সকলেরই পাঁচ কালেমা জানা ফরজ, মুসলমান হয়ে ও সবাই বলতে পারিনা পাঁচ কালেমা  অথবা জানিনা ।তাই আজকে আমরা এই পোস্টে এই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়টি আলোচনা করব তাই আপনারা এই পোস্টটি ভালোভাবে পড়বেন ও দোয়া মাসুরা পাঁচ কালেমা ইত্যাদি মুখস্ত করিয়ে রাখবেন যা আমাদের একজন পাকাপোক্ত ঈমানদার হওয়ার জন্য দরকার আর পাঁচ কালেমা যদি জানা না থাকে তাহলে সে একজন মুসলমান হিসেবে নিজেকে দাবি করতে পারে না । তাই আপনারা পাঁচ কালেমা মুখস্থ করিয়ে রাখবেন ।চলুন কথা না বাড়িয়ে আমরা চলে যাই মূল বিষয়ে–

দো’আয়ে মাসূরা:

দো’আয়ে মাসুরা যা আমদের প্রিয় নবী হযরত মুহাম্মাদ (সা:) পাঠ করেতেন দো’আয়ে মাসূরা একজন মুমিন ব্যকিবত পাঠ করলে অনেক ছাওয়াব পাবে ।নিচে দেওয়া হলো দো;আয়ে মাসূরা

উচ্চারণ: আল্লাহুম্মা ইন্নি জ্বলামতু নাফসী যুলমান কাসীরাওঁ ওয়ালা ইয়াগফিরুযযুনূবা

ইল্লা আনতা; ফাগফিরলী মাগফিরাতাম-মিন ইনদিকা ওয়ারহামনী ইন্নাকা

আনতাল গাফারুর রাহীম ।

দো’আয়ে কুনূত:

দো’আয়ে কুনূত এর ফজিলত অনেক বেশী যা বিতরের নামাযে আমরা পড়ে থাকি এশার বেতের নামাযে বেতের নামায আদায় করার জন্য আপনাকে অব্যশই এই  দোয়াটি পড়তে হবে কেউ অন্য দোয়াও পড়ে নিচে দেওয়া হলো দো’আয়ে কুনূত—

 উচ্চারণ :আল্লা-হুম্মা ইন্না-নাস্তাঈ-নুকা ওয়া নাস্তাগফিরুকা ওয়া নু’মিনুবিকা ওয়া

নাতাওয়াক্কালু আ’লাইকা ওয়া নুছনী আ’লাইকাল খাইর । ওয়া নাশকুরুকা ওয়া লা-

নাকফুরুকা ওয়া নাখলাউ ওয়া নাতরুকু মাই-ইয়াফজুরুকা, আল্লা-হুম্মা ইয়্যাকা না’বুদু

ওয়া লাকা নুসাল্লী-ওয়া নাসজুদু ওয়া ইলাইকা নাসআ-ওয়া নাহফিদু ওয়া

নারজু রাহমাতাকা ওয়া নাখশা-আ’যাবাকা ইন্না আ’যাবাকা বিল্ কূফফা-রি মুলহিক

সূরা হাসরের শেষ তিন আয়াত:

সূরা হসরের তিন আয়াত একজন মুমিন ব্যক্তি ফজরের নামায শেষে যদি পাঠ করে তাহলে সেই মুমিন ব্যক্তির টার জন্য ৭০ হাজার ফেরেশতা তার মাগফিরাত কামনা করে ।তাই আমাদের সকলের পাঠ করা উচিৎ নিচে দেওয়া হলো সূরা হাসরের তিন আয়াত—

উচ্চারণ: প্রথম আয়াত :হুয়াল্লা হুল্লাজি লা-ইলাহা, ইল্লাহু, আলিমুল গাইবী ওয়াশ শাহাদাতী হুয়ার রাহমানুর রাহিম।

দ্বিতীয় আয়াত: হুযাল্লা হুল্লাজি লা-ইলাহা ইল্লাহু, আল মালিকুল কুদ্দুসুস সালামুল মু’মিনুল মুহায়মিনুল আজিজুল

জব্বারুল মুতিাকাব্বির । সুবহানাল্লাহি আম্মা ইউশরিকুন ।

তৃতীয় আয়ত: হুয়াল্লাহুল খালিকুল বারিউল মুসাববিরিযু লাহুল আসমাউল হুসনা ।ইউসাব্বিহু লা-হুমা ফিস

-সামাওয়াতি ওয়াল আরদ্ব ।ওয়া হুয়াল আজিজুল হাকিম ।

পাঁচ কালেমা:

একজন ব্যক্তি যদি নিজেকে মুসলমান ভাবে তাহলে তাকে অব্যশই পাঁচ কালেমা জানতে হবে ।আর একজন মুসলমানের পাচ কালেমা জানা ফরয। নিচে দেওয়া হলো—

প্রথম কালেমা: কালেমায়ে তাইয়্যেবা

উচ্চারণ: লা-ইলাহা ইল্লাল্লা-হু মুহাম্মাদুর রাসূলুল্লাহ ।

দ্বিতীয় কালেমা: কালেমায়ে শাহাদাত

উচ্চারণ:আশহাদু আল্লা-ইল্লা-হা ইল্লাল্লা-হু ওয়াহদাহু-লা-শারী- কালাহু – ওয়া আশহাদু আন্না মুহাম্মাদান আবদুহু- ওয়া রাসূ-লুহ্ ।

তৃতীয কালেমা: কালেমায়ে তাওহীদ

উচ্চারণ: লা- ইলা-হা ইল্লা- আনতা ওয়া-হিদাল লা-ছা- নিয়ালাকা মুহাম্মাদুর রাসূলুল্লা-হি ইমা-মুল মুত্তাকি- না রাসূ-লু রাব্বিল আ-লামীন

চতুর্থ কালেমা: কালেমায়ে তামজীদ

লা-ইলা-হা ইল্লা আন্তা নূ-রাই ইয়াহদিয়াল্লা-হু লিনু- রিহী- মাইয়্যাশা-উ মুহাম্মাদুর রাসূ-লূ্ল্লা-হি

ঈমা-মুল মুরছালী-না খা- তামুন্নাবিয়্যিন ।

পঞ্চম কালেমা: কালেমায়ে রদ্দেকুফর

উচ্চারণ:আল্লাহুম্মা ইন্নী আউযুবিকা মিন  আন উশরিকা বিকা শাইআও ওয়া আনা আলামু বিহি ওয়া আসতাগ

ফিরুকা লিমা আলামু বিহি ওয়ামা লা আলামু বিহি তুবতু আনহু ওয়া তাবাররাতু মিনাল কুফরি ওয়াসশির্কি ওয়াল

মা আছি কুল্লিহা ওয়া আসলামতু ওয়া আমানতু ওয়া আক্বলু আল্লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু মুহাম্মাদু রাসূলুল্লাহ ।

অন্যান্য দোয়া গুলো

আমাদের সকলেরই চলার পথে অনেক দোয়ার দরকার হয় যেমন কবর যিয়ারতের জন্য কবর যিয়ারতের দোয়া জানতে হয়, শয়তান থেকে নিরাপদে থাকার দোয়া ঘরে প্রবেশে দোয়া ইত্যাদি নিচে আলোচনা করা হলো—

কবর যিয়ারতের দোয়া:

উচ্চারণ: আসসালামু আলাইকুম আহলাদ্দিয়ারি মিনাল মু’মিনীনা ওয়াল মুসলিমীনা,

ওয়াইন্না ইনশা- আল্লা-হু বিকুম লা-হিকুনা , ওয়া ইয়ারহামুল্লাহুল মুসতাক্বদিমীনা মিনা

ওয়াল মুসতা’খিরীনা, নাসআলুল্লাহা লানা ওয়ালাকুমুল ‘আ-ফিয়াহ ।

শয়তান থেকে নিরাপদে থাকার দোয়া:

উচ্চারণ: আল্লাহুম্মা ইন্নি আউযুবিকা আন আদিল্লা আও উদাল আও আযিল্লা আও উযাল,

আও আযলিমা আও উযলাম, আও আজহালা আও উযহালা আলাইয়া ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *